অভদ্র চালকদের পরিচয় প্রকাশে একাট্টা উবার-লিফট

ঠিকানা ডেস্ক : যৌন নিপীড়ন ও অন্যান্য অপরাধের অভিযোগে রাইড-হেইলিং সার্ভিস থেকে বহিষ্কৃত চালকদের একটি ডাটাবেজ তৈরির যৌন উদ্যোগ নিয়েছে ‘উবার’ও ‘লিফ্ট’।
গত ১১ মার্চ এই ঘোষণা দেওয়া হয় যা যুক্তরাষ্ট্রে রাইড-হেইলিং সার্ভিস থেকে বহিষ্কৃত চালকদের তালিকাভুক্ত করবে। তবে অন্য সংস্থাগুলোর জন্য এটিকে উন্মুক্ত করে দেওয়া হবে বিশেষ করে যারা মুদিপণ্য সরবরাহ বা রেস্তোরাঁ থেকে অর্ডার নেওয়ার মতো সার্ভিসে কর্মীদের নিযুক্ত করে।
‘শেয়ারিং সুরক্ষা প্রোগ্রাম’ নামে নন এই সেইফগার্ড ব্যাকগ্রাউন্ড চেক বিশেষজ্ঞ হায়াররাইট তদারক করবে। তৃতীয় পক্ষের ব্যবহারের উদ্দেশ্য হলো প্রতিযোগীদের একে অপরের কর্মচারীবিষয়ক তথ্যে অ্যাক্সেস পেতে উবার ও লিফটের মতো সংস্থার সম্ভাব্য আইনি জটিলতা মোকাবেলা করা।
উবারের প্রধান আইনি কর্মকর্তা টনি ওয়েস্ট অ্যাসোসিয়েটেড প্রেসকে (এপি) জানান, “লিফট এবং উবার পুরোপুরিভাবে প্রতিদ্বন্দ্বী, তবে সুরক্ষার এই ইস্যুতে আমরা পুরোপুরি সম্মত হয়েছি যে লোকেরা যে প্ল্যাটফর্মটিকেই বেছে নিই না কেন, সেটি নিরাপদ হওয়া উচিত।”
তিনি একটি সাক্ষাৎকারে বক্তব্য দেন যেখানে লিফ্টের পলিসি ডেভেলপমেন্ট প্রধান জেনিফার ব্র্যান্ডেনবার্গার উপস্থিত ছিলেন।
এই সুরক্ষা কর্মসূচি এমন এক প্রতিশ্রুতির ফল যা উবার ১৫ মাস আগে করে যখন প্রকাশিত করেছিল, যেখানে ২০১৮ সালে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে উবারের সেবা নিয়ে ৩ হাজারেরও বেশি যৌন নির্যাতনের ঘটনা ঘটেছিল।
এই তথ্য প্রকাশের পর থেকে, সান ফ্রান্সিসকো ভিত্তিক উবার এবং লিফ্ট হিংসাত্মক বা অন্যান্য ঘৃণ্য আচরণে জড়িত ড্রাইভার যাদের সার্ভিসগুলো থেকে পদচ্যুত করা হয়েছে, তাদের পরিচয় প্রকাশে গোপনীয়তার সাথে কাজ করছে।
গোপনীয়তা রক্ষার জন্য কোনও যাত্রীর তথ্য ডাটাবেজে প্রকাশ করা হবে না এবং ড্রাইভারের বরখাস্তের পেছনের যৌন সহিংসতা বিষয়ক ঘটনাগুলোকে ছয়টি বিভাগে তালিকাভুক্ত করা হবে।
ওয়েস্ট জানান, তথ্যের ক্লিয়ারিংহাউজে অ্যাক্সেসের ফলে যেকোনো সংস্থা নিজস্ব তদন্তের পরে চালককে তার সার্ভিসে অনুমতি দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিতে পারে।
মাইকেল ওল্ফ নামে একজন উবার চালক, যিনি প্রায় দুই হাজার অন্যান্য ড্রাইভারের প্রতিনিধিত্বকারী একটি ওয়াশিংটন স্টেট গোষ্ঠীর নেতৃত্ব দেন, এই প্রচেষ্টার জন্য উভয় রাইড-হেইলিং সার্ভিসের প্রশংসা করেন।
ইতোমধ্যে রেইপ, এবিউজ এবং ইনসেস্ট ন্যাশনাল নেটওয়ার্ক এই সুরক্ষার উদ্যোগের প্রশংসা করেছে।
নেটওয়ার্কের সভাপতি স্কট বার্কোউইটস বলেন, “এই উদ্যোগের জন্য ধন্যবাদ, অপরাধীরা আর রাইডশেয়ারিং প্ল্যাটফর্ম পরিবর্তন করে জবাবদিহিতা থেকে বাঁচতে বা পালাতে পারবে না।”
এটি মার্কিন সংসদ সদস্যদের সন্তুষ্ট করতেও সহায়তা করতে পারে, যারা অতীতে উবার এবং লিফটকে যাত্রীদের অপর্যাপ্ত সুরক্ষার জন্য সমালোচনা করেন।
ব্র্যাডেনবার্গারের মতে, লিফট তার সার্ভিসে অতীতের সমস্যা নিয়ে প্রতিবেদন প্রকাশের প্রতিশ্রুতি দেয়নি। কারণ সংস্থাটি ক্যালিফোর্নিয়ার নিয়ন্ত্রকদের সাথে গোপনীয়তার বিরোধ নিষ্পত্তি করার জন্য উবারের অপেক্ষায় রয়েছে।
২০১৯ ডিসেম্বরের প্রতিবেদনে উবার তার সেবা নিয়ে অতীত অপব্যবহারের বিশদ বিবরণ উপস্থাপনের পর ক্যালিফোর্নিয়ার পাবলিক ইউটিলিটিস কমিশন ক্ষতিগ্রস্তদের নাম এবং যোগাযোগের নম্বর চায়। উবার ভুক্তভোগীদের গোপনীয়তা রক্ষার অনুরোধটি প্রত্যাখ্যান করায় সংস্থাটি ৫০ লাখ ডলার জরিমানা করে। বিরোধটি এখনও আদালতের আপিল বিভাগে প্রক্রিয়াধীন।
সুরক্ষার বিষয়টি এমন সময়ে উঠে এসেছে, যখন উভয় রাইড-হেইলিং সার্ভিস এখনও মহামারী কারণে হওয়া ক্ষতি কাটিয়ে ওঠার চেষ্টা করছে।