আফ্রিকার দেশ গ্যাবনের ক্ষমতা নিল সেনাবাহিনী

আফ্রিকার তেল সমৃদ্ধ দেশ গ্যাবনে অভ্যুত্থানে ক্ষমতা দখল করে নিয়েছে দেশটির সেনাবাহিনী। তাদের দাবি, তারা গণতন্ত্র পুনর্গঠনে এ অভিযান চালিয়েছে।

স্থানীয় সময় ভোর সাড়ে চারটায় রাষ্ট্রীয় রেডিও স্টেশন দখল করে তারা ‘জাতীয় পুনর্গঠন পরিষদ’ এর ঘোষণা দেয়।

গ্যাবনে বিগত ৫০ বছর ধরে একটি পরিবারই ক্ষমতায় ছিলো। ২০০৯ সালে দেশটির ক্ষমতায় আসেন ওমর বঙ্গোর ছেলে আলি বঙ্গো। ২০১৬ সালে সহিংসতাপূর্ণ এক নির্বাচনে খুবই অল্প ব্যবধানে আবার জয় পান।

গত বছর হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে মরোক্কোতে চিকিৎসা নেন তিনি। গত দুই মাস ধরে দেশের বাইরে আছেন প্রেসিডেন্ট।

টেলিভিশনে দেওয়া এক ভাষণে বঙ্গো দাবি করেন, তিনি সুস্থ আছেন। সেনা কর্মকর্তারা জানান, প্রেসিডেন্ট ক্ষমতায় টিকে থাকার জন্য এমন বক্তব্য দিয়েছেন। এই আচরণে তারা হতাশ।

প্যাট্রয়টিক মুভমেন্ট অব দ্য ডিফেন্ড অ্যান্ড সিকিউরিটি ফোর্সের নেতা কেলি অন্দো বলেন, ‘প্রেসিডেন্ট হিসেবে দায়িত্বপালনের জন্য তিনি যথেস্ট সুস্থ কী না, সেটা নিয়ে সংশয় আছে।’ তিনি তরুণদের দেশের দায়িত্ব নেওয়ার জন্য আহ্বান জানান। দেশের পরিবহন ব্যবস্থা, বিমানবন্দর ও অস্ত্র মজুদ নিজেদের দখলে নেওয়ার আহ্বান জানানো হয়।

সরকারের পক্ষ থেকে এখনও কোনো মন্তব্য আসেনি। ইতোমধ্যে দেশটিতে থাকা মার্কিন নাগরিকদের সুরক্ষার জন্য সেনা মোতায়েন করেছেন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প।