আবার ‘মি-টু’ ঝড়

মাঝখানে কিছুটা শিথিল হলেও বলিউডে আবার বেগবান হচ্ছে ‘মি-টু’ ঝড়। আর এই ঝড় তুললেন বলিউড অভিনেত্রী অদিতি রাও হায়দারি। সম্প্রতি একটি সংবাদমাধ্যমকে দেয়া সাক্ষাৎকারে তিনি বলেন, খুব মারাত্মক কোনও অভিজ্ঞতার সাক্ষী তাকে হতে হয়নি। কিন্তু একেবারেই যে তাকে এসবের মুখোমুখি হতে হয়নি, তা নয়। অদিতি বলেছেন, তার সঙ্গে এমন ঘটনা ঘটেছিল ক্যারিয়ারের শুরুর দিকে। তিনি রক্ষণশীল পরিবার থেকে এসেছিলেন। ফলে তার বেড়ে ওঠা ছিল অন্যরকম। তিনি জানতেন না, ইন্ডাস্ট্রি সম্পর্কে যে গুজবগুলি তিনি শুনতে পান, সেগুলি সত্যি হতে পারে। সেটাই হয়েছিল তার সঙ্গে। তবে ওই একবারই। তার কাছে সরাসরি একটি প্রস্তাব করা হয়েছিল। যে প্রস্তাবটি করা হয়েছিল, তাতে সাড়া না দিলে তাকে প্রজেক্ট থেকে সরিয়ে দেয়া হবে বলেও জানিয়ে দেয়া হয়। কিন্তু তাতে অদিতি নিজের সিদ্ধান্ত থেকে সরে আসেননি। ফলে সেই প্রজেক্টটি হাতছাড়া হয় অদিতির। প্রায় আট বছর তিনি কাজ পাননি। এরপরও কাজ জোগাড় করতে কসরত করতে হয়েছিল তাকে। অদিতি জনিয়েছেন, নিজে যদি ভিতর থেকে তৈরি থাকা যায়, তবেই এসব নিয়ে মুখ খোলা উচিত। তবে মুখ কিন্তু অবশ্যই খোলা দরকার। না হলে সবাই ধরেই নেবে মৌনতা সম্মতির লক্ষণ।
কাস্টিং কাউচ নিয়ে এর আগেও মুখ খুলেছিলেন অদিতি রাও হায়দারি। সেবারও তিনি বলেছিলেন, প্রতিবাদ করার যখন তাকে কাজ হারাতে হয়েছিল, তিনি খুব কান্নাকাটি করেছিলেন। কিন্তু অনুশোচনা কখনও হয়নি তার। কারণ তিনি জানতেন, তিনি ভুল করেননি কিছু। তবে তার এই ভেবে দুঃখ হতো যে, এই ইন্ডাস্ট্রিতে মহিলাদের সঙ্গে এমন ব্যবহার করা হয়। কেউ তার সঙ্গে এমন ব্যবহার করতে পারে, এটাই মেনে নিতে পারেননি অদিতি। পরে অবশ্য আস্তে আস্তে এসব বুঝতে পেরেছিলেন তিনি।