ক্যালিফোর্নিয়ায় দাবানলে নিহত ৭৬, সহস্রাধিক নিখোঁজ

ঠিকানা রিপোর্ট : নর্দার্ন ক্যালিফোর্নিয়ার ক্যাম্প ফায়ারে সর্বশেষ তথ্যানুযায়ী ৭৬ জনের প্রাণহানি হয়েছে। শুরুতে নিখোঁজের সংখ্যা তের শতাধিক উল্লেখ করা হলেও পরবর্তীতে তা সংশোধন করে সহস্রাধিক বলা হয়েছে। দাবানলে পুরোপুরি ধ্বংসপ্রাপ্ত প্যারাডাইস শহর।
বাটে কাউন্টি শেরিফ কোরী হোনিয়া জানান, নর্দার্ন ক্যালিফোর্নিয়ার ক্যাম্প ফায়াওে ১০ সহস্রাধিক বাড়িঘর ও স্থাপনা পুরোপুরি ধ্বংস হয়ে গেছে এবং ২৩৩ বর্গমাইল এলাকার অবর্ণনীয় ক্ষতি সাধিত হয়েছে। তিনি আরও জানান, সারা স্টেট থেকে আগত ৪ শতাধিক উদ্ধারকর্মী দলবদ্ধ হয়ে অগ্নিদগ্ধ বাড়িঘর ও কারে অনুসন্ধান চালাচ্ছেন মৃতদেহের সন্ধানে। ১২ সদস্যের একটি দল দ্বারে দ্বারে ও ঘরে ঘরে ঘুরে বেড়াচ্ছেন। ৮ সহস্রাধিক অগ্নিনির্বাপক কর্মী প্রাণান্ত প্রচেষ্টায় আগুন নিয়ন্ত্রণে আনার চেষ্টা চালাচ্ছেন।
সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তারা বলছেন যে, ৮ নভেম্বরে অগ্নিকাণ্ড শুরুর পর থেকেই উপদ্রুত এলাকাবাসীর ফোন কল, রিপোর্ট এবং ই-মেইল বিবেচনা করে সকল নিখোঁজ ব্যক্তিদের তালিকা তৈরি করাতেই সংখ্যার বড় ধরনের তারতম্য ঘটেছে। আগুন এত দ্রুত ছড়িয়ে পরেছিল যে, অনেকেই তাদের স্বজনদের খুঁজে বের করার জন্যে মাত্রা কয়েক মিনিট সময় পেয়েছিলেন এবং এরপর ভিড়ের রাস্তা দিয়ে আশ্রয়স্থলে যাবার সুযোগ পেয়েছেন।
বিদ্যুৎ এবং মোবাইলের টাওয়ারগুলো পুড়ে গেছে, তাই অনেক জায়গাতেই মোবাইল ফোন পরিষেবা বন্ধ ছিল। কিছু অঞ্চলে অস্থায়ী টাওয়ার স্থাপন করে সেবা চালু করা হয়েছে। কাউন্টি ওয়েবসাইটে সরকারি তালিকার পাশাপাশি স্থানীয় বুলেটিন বোর্ড, গাছের গায়ে লাগানো পোস্টারের মাধ্যমেও নিখোঁজদের সন্ধান করা হচ্ছে। এছাড়া সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে এ সংক্রান্ত বিভিন্ন গ্রুপ খুলে তার মাধ্যমেও অনেকেই প্রিয়জনদের সন্ধান চালানোর ওপর আস্থা রাখছেন।
প্যারাডাইস শহরের পুলিশের প্রধান কর্মকর্তা এরিক রেইনবোল্ড বলছেন যে, জনসংখ্যা তত্ত্ববিদরা জরুরি পরিস্থিতিগুলোতে অধিবাসীদের উদ্ধারে এই সমস্যাগুলোর ওপর জোর দিয়েছেন। তার মতে, ‘অন্য অনেক এলাকার মতোই এখানেও এমন বয়স্ক মানুষ ছিলেন যারা ড্রাইভিং করা ছেড়ে দিয়েছিলেন।’ এদিকে গত ১৭ নভেম্বর শনিবার দেশটির প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প ক্ষতিগ্রস্ত এলাকা পরিদর্শনে যান। তিনি বলেন, এরকম ভয়াবহ অবস্থা আর যেন না ঘটে তার ব্যবস্থা আমরা করবো। ডেমক্র্যাটিক নেতৃবর্গও উপদ্রুত এলাকা পরিদর্শন করেছেন এবং প্রয়োজনীয় সাহায্যের আশ্বাস দিয়েছেন।