চুল বড় রাখতে মামলা

প্রতীকী ছবি

ঠিকানা ডেস্ক : জার্মান সেনাবাহিনীর নিয়মানুযায়ী, পুরুষ সেনা কর্মকর্তাদের চুল, চোখ ও কান স্পর্শ করতে পারবে না। এ ছাড়া পেছন থেকে শার্টের কলারও স্পর্শ করতে পারবে না। তবে দেশটির ৫১ বছর বয়সী এক সেনা কর্মকর্তা এ নিয়মের বিরোধিতা করেছেন। তিনি চুল বড় করতে চেয়েছিলেন। কিন্তু তার এ ইচ্ছাই সামরিক কর্তৃপক্ষ বাদ সাধলে আদালতে মামলা করেন তিনি।
অভিযোগকারী সেনা কর্মকর্তা আদালতে বলেন, প্রাচীন যোদ্ধাদের লম্বা চুল ছিল। সেই চুল তাদের কোনো অসুবিধা করেছে বলে ইতিহাসে উল্লেখ নেই। তিনি আরও দাবি করেন, বর্তমান নিয়মে যদি একজন নারী সেনা চুল লম্বা রাখতে পারেন, তবে পুরুষ সেনা কেন পারবে না?
ওই সেনা বর্তমানে বন শহরে প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ে কর্মরত। সেখানকার আদালতেই লম্বা চুল রাখার অনুমতি চেয়ে মামলা করেন তিনি। গত ৩১ জানুয়ারি তার বিরুদ্ধে রায় দেন আদালত। আদালত জানান, সামরিক বাহিনীতে চুলকাটাবিষয়ক যে বিধান রয়েছে, তার পেছনে পর্যাপ্ত আইনগত ভিত্তি পরিলক্ষিত হয়নি ঠিকই, তবে নতুন নিয়ম না আসা পর্যন্ত এ বিধানই বহাল থাকবে। চুল ছাঁটের কঠোর নিয়মটি সেনা কর্তৃপক্ষকে নতুন করে ভাবার কথা বলেছেন আদালত।