দুর্নীতির অভিযোগে পশ্চিমবঙ্গের শিল্পমন্ত্রী পার্থ চ্যাটার্জি গ্রেফতার

ঠিকানা অনলাইন : পশ্চিমবঙ্গ রাজ্যের শিল্পমন্ত্রী ও তৃণমূল মহাসচিব পার্থ চ্যাটার্জিকে গ্রেফতার করেছে ভারতের এনফোর্সমেন্ট ডিরেক্টরেট (ইডি)। প্রায় ২৭ ঘণ্টা জেরার পর গ্রেফতার করা হল তাকে। ২২ জুলাই (শুক্রবার) সকাল থেকে রাতভর জিজ্ঞাসাবাদ করা হয় রাজ্যের শিল্পমন্ত্রীকে। সূত্রের খবর, গ্রেফতারির পর প্রথমে শারীরিক পরীক্ষা নিরীক্ষা হবে মন্ত্রীর। এরপর সিজিও কমপ্লেক্সে নিয়ে যাওয়া হবে তাকে। সেখানে ফের জিজ্ঞাসাবাদ করা হবে পার্থবাবুকে। এদিকে, পার্থ চ্যাটার্জির ‘ঘনিষ্ঠ’ অর্পিতাকে আটক করেছে ইডি।

এসএসসি নিয়োগ দুর্নীতি নিয়ে কলকাতা হাইকোর্টের হস্তক্ষেপের পর তদন্তে নামে সিবিআই। হাইকোর্টের নির্দেশে তদন্ত শুরুর পর থেকেই কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থা সিবিআইয়ের নজরে আসেন সাবেক শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চ্যাটার্জি। সিবিআই জেরার মুখোমুখিও হয়েছিলেন তিনি। শুক্রবার সকাল থেকে পার্থ চ্যাটার্জির বাড়িতে তল্লাশি অভিযান চালায় ইডি। রাতভর দফায় দফায় জেরাও করা হয় তাকে। শনিবার সকাল থেকে রাজ্যের মন্ত্রীর বাড়ির নিরাপত্তা বাড়ানো হয়। কেন্দ্রীয় বাহিনীতে কার্যত মুড়ে ফেলা হয় গোটা বাড়ি। প্রায় ২৭ ঘণ্টা জেরার পর সকাল ১০টা নাগাদ অ্যারেস্ট মেমোয় সই করানো হয় তাকে। এরপর গ্রেফতার করা হয় রাজ্যের সাবেক শিক্ষামন্ত্রীকে। আজই মন্ত্রীকে আদালতে তোলা হবে বলেই জানান আইনজীবী অনিন্দ্যকিশোর রাউত।

এদিকে, বাড়ি থেকে বান্ডিল বান্ডিল টাকা উদ্ধারের পর পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের ‘ঘনিষ্ঠ’ অর্পিতাকে আটক করেছে ইডি। বিপুল পরিমাণ টাকা, সোনার গয়না, বিদেশী মুদ্রা কীভাবে তার কাছে এল, সে সম্পর্কে তথ্যের খোঁজে অর্পিতাকে টানা জেরা চলছে। ইডি সূত্রে খবর, পার্থ ‘ঘনিষ্ঠে’র বয়ানে রয়েছে একাধিক অসংগতি। পার্থ চ্যাটার্জির গ্রেফতারি নিয়ে চলছে রাজনৈতিক চাপানউতোর। ঘণ্টার পর ঘণ্টা জেরা করে বদান্যতা দেখিয়েছে ইডি, মত সিপিএম নেতা বিকাশরঞ্জন ভট্টাচার্যের। কংগ্রেস সংসদ সদস্য অধীর চৌধুরী অবশ্য পার্থ চ্যাটার্জির গ্রেফতারিকে হিমশৈলের চূড়া বলেই মনে করছেন।

বিজেপির সর্বভারতীয় সহ-সভাপতি দিলীপ ঘোষ তৃণমূলকে তীব্র আক্রমণ করেন। তিনি বলেন, ‘নথি, মোবাইল বাজেয়াপ্ত করা হয়েছে। তার মাধ্যমে আরো নানা তথ্য সামনে আসবে।’ তবে এই ঘটনার সাথে তৃণমূলের কোনো সম্পর্ক নেই বলে টুইটে আগেই জানিয়েছেন তৃণমূলের রাজ্য সাধারণ সম্পাদক কুণাল ঘোষ। সূত্র : সংবাদ প্রতিদিন

ঠিকানা/এম