বহুবচনের একুশ পালন


ঠিকানা রিপোর্ট : ফেব্রুয়ারি মাস বাঙালিদের ভালোবাসার মাস, আবেগের মাস। আন্দোলন, জীবনদান এবং অধিকার আদায়ের মাস। ভাষার মাস। মায়ের মুখের ভাষার মর্যাদা রক্ষায় বাঙালিদের আত্মোৎর্গের মাস।
যারা সেদিন ১৯৫২ সালের ২১ ফেব্রুয়ারি বাংলাভাষার সংগ্রামে পাকিস্তানি জান্তার হাতে শহীদ হয়েছিলেন, যাদের রক্তে ঢাকার রাজপথ রঞ্জিত হয়েছিল সেই বরকত, রফিক, শফিক, জব্বার স্মরণে বাঙালিরা দেশে থাক আর পৃথিবীর যেখানেই থাক, বিভিন্ন অনুষ্ঠানের আয়োজন করে থাকেন।
বাংলাদেশে যেমন ঐতিহাসিক বইমেলা দিয়ে একুশের মাস ফেব্রুয়ারি শুরু হয়েছে। বিশ্ব রাজধানী নিউইয়র্কে তেমনি ‘বহুবচন’ প্রথম অনুষ্ঠান আয়োজনের মধ্য দিয়ে একুশের শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা নিবেদন করেছে।
বহুবচন গত ২ ফেব্রুয়ারি শনিবার সন্ধ্যায় হিলসাইডের স্মার্ট একাডেমিয়ায় একুশে পালন উপলক্ষে বাংলা, ইংরেজি কবিতা পাঠ, সেমিনার, আলোচনা, আবৃত্তির আয়োজন করে। শুভেচ্ছা বক্তব্য রাখেন কবি আবু সাইদ রতন, লেখক, গবেষক ওবায়দুল্লাহ মামুন।


সাহিত্যচর্চায় একুশের প্রভাব শীর্ষক সেমিনারে অংশ নেন ঠিকানার প্রধান সম্পাদক মুহম্মদ ফজলুর রহমান এবং একদেশ দুই ভাষা সেমিনারে বক্তব্য রাখেন লেখক বুদ্ধিজীবী হাসান ফেরদৌস এবং এদেশে জন্ম নেয়া নতুন প্রজন্মের জেরিন মাইশা।
স্বরচিত কবিতা পাঠ করেন সুলতানা খানম, সৈয়দ আহমেদ জুয়েদ, ছন্দা বিনতে সুলতান, ফারহানা ইলিয়াস তুলি, আহমেদ হোসেন বাবু, শামিম আরা আফিয়া, মিশুক সেলিম, কাজী জহিরুল ইসলাম, হোসাইন কবির। আবৃত্তিতে অংশ নেন লুবনা কাইজার, গোপন সাহা, শুক্লা রায়, আনোয়ারুল হক লাবলু। অনুষ্ঠানের সূচনা হয় একুশের সঙ্গীত ‘আমার ভায়ের রক্তে রাঙানো…’ গান গেয়ে।


এছাড়া একুশে ফেব্রুয়ারি আমেরিকায় ব্লাক হিস্ট্রি মান্থ হিসেবে উদযাপিত হয়ে থাকে। এ উপলক্ষে একই দিন বহুবচনও উদযাপন করে মাসটি। এই পর্বে আমেরিকায় কবিদের কবিতা পাঠ করে শোনান ছোট্টমনি তামান্না আহমেদ, গুঞ্জরী সাহা। রোজা পার্কের জীবনী পাঠ করে শোনায় জনম সাহা। এ পর্বের সঞ্চালক কবি শামস আল মমীনও কবিতা পাঠ করে দর্শক শ্রোতাদের অভিভূত করেন।
অনুষ্ঠানের সার্বিক সঞ্চালনায় ছিলেন নাট্য ব্যক্তিত্ব মুজিব বিন হক, এবিএম সালেহ উদদীন এবং আনোয়ার সেলিম।