রাজধানীর বাইরে নিয়ে যেতে হবে খেলা

স্পোর্টস রিপোর্ট : গত এক দশকে দেশে রাগবির কার্যক্রম অনেক বেড়েছে। স্কুল-কলেজের ছেলেমেয়েদের অংশগ্রহণ বেড়েছে এই খেলায়। জাতীয় চ্যাম্পিয়নশিপে জেলা পর্যায়ের অংশগ্রহণও উল্লেখযোগ্য। এই রাগবিতে আরো গতি আনতে এশিয়ান কোচিং এডুকেটর বেনজামিন ফন রুয়েন কয়েক দিন ধরেই কাজ করছেন ঢাকায়। বাংলাদেশে তার অভিজ্ঞতা নিয়েই একটি জাতীয় দৈনিকের স্পোর্টসের মুখোমুখি কথা বলছেন তিনি
প্রশ্ন : বাংলাদেশে কাজ করার অভিজ্ঞতা কেমন?
উত্তর : এখানকার মানুষের আতিথ্যে আমি মুগ্ধ। রাগবিতে আগ্রহী লোকজনও অনেক। বেশ কিছু তরুণ কোচের সঙ্গে এখানে কাজ করলাম। ভবিষ্যতে ওরা দেশকে অনেক কিছু দেবে। বেশ পরিশ্রমী এবং ইতিবাচক মানসিকতার সবাই। ছোট ছোট ছেলেমেয়েকে খেলা শেখানোর জন্য এমনদেরই চাই।
প্রশ্ন : কিছু খেলাও দেখেছেন এখানে, খেলোয়াড়দের কেমন দেখলেন?
উত্তর : গত কয়েক দিনে বেশ কিছু ম্যাচ দেখেছি। প্রাইমারি স্কুলের শিশুদের থেকে শুরু করে, অনূর্ধ্ব-১৬ দল, সিনিয়র দল ও মেয়েদের খেলা দেখেছি। অনূর্ধ্ব-১৬ দলের মান প্রশংসা করার মতো। মেয়েরা এখনো সেই পর্যায়ে আসেনি। তবে খেলাটায় তাদের ভীষণ আগ্রহ দেখেছি। বাংলাদেশে এখন অংশগ্রহণটাই বেশি গুরুত্বপূর্ণ। এরপর আসে মানোন্নয়ন, সে জন্যই আমরা কোচদের নিয়ে কাজ করছি।
প্রশ্ন : এশিয়ান রাগবির হয়ে এই অঞ্চলের অন্যান্য দেশে আপনার অভিজ্ঞতা কেমন?
উত্তর : পাশের দেশ ভারত, পাকিস্তান, শ্রীলঙ্কায়ও কাজ করে এসেছি। রাগবিতে ভারতের লম্বা ইতিহাস আছে, শ্রীলঙ্কারও তাই। পাকিস্তান ও বাংলাদেশে খেলাটা তুলনামূলক নতুন। এখানে রাগবিটা এখনো আছে সম্ভাবনার পর্যায়ে। বাংলাদেশের বিশাল জনসংখ্যা, অনেক ছেলেমেয়ে, ওদের এই খেলাটায় সুযোগ করে দিতে হবে। বাংলাদেশ ফেডারেশনকেই এই কাজটা করতে হবে, স্কুল-কলেজে গিয়ে ঢাকার বাইরে খেলাটা শিশুদের কাছে নিয়ে যেতে হবে। এর জন্য ভালো ডেভেলপমেন্ট অফিসার যেমন দরকার, তেমন দরকার ভালো মানের কোচ।
প্রশ্ন : রাগবিতে এই অঞ্চলের সম্ভাবনা আসলে কতটুকু?
উত্তর : এশিয়ায় জাপান শীর্ষে। ওখানে অনেক পুরনো এই খেলাটা। বাংলাদেশে তো শুরু হলো বছর দশেক। বিশ্ব রাগবি যেমন, খেলাটার প্রসার হবে এই অঞ্চলগুলোতেও। ওয়ার্ল্ড রাগবির শুরুর সময়ও কিন্তু ভাবা যায়নি একসময় এই খেলাটা এত জনপ্রিয় হবে।
প্রশ্ন : কিন্তু বাংলাদেশে তো নিজস্ব মাঠও নেই
উত্তর : সত্যি বলতে এই মুহূর্তে আমরা এর চেয়ে খুব ভালো কিছু আশাও করিনি। আর বাংলাদেশই একমাত্র দেশ না যাদের মাঠের সমস্যা আছে।
প্রশ্ন : শারীরিক গড়ন তো একটা বাধা?
উত্তর : তাও না । রাগবি ১৫-তে তা হয়তো বাধা। কিন্তু রাগবি সেভেন, যেটা অলিম্পিকে খেলা হয় সেখানে স্পিড আর টেকনিকটাই কিন্তু সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ।