রূপা/বনরূপা/রূপা

শফিক জামিল

বনরূপা সেই কবে হতে তোমাকে খুঁজছি
কোথায় না খুঁজেছি?

হেলে পরা বাবলাগাছের গুঁড়িতে বসে
তুমি আমি কাটাতাম কত না বৈকালবেলা, সেখানে;
নদীর ওপারের গ্রামে নারিকেল সুপারি অশ্বত্থের পেছনে
সূর্যাস্ত দেখতে কেটেছে কত না সন্ধ্যা, ঐখানে;
পূর্ব হতে পশ্চিমে পাহাড়ে সাগরে জমিনে বনে-বাদাড়ে
বাদ রাখিনি কোনোখানে;
অবশেষে খুঁজে পেলাম আমারই কামরার পাশে,
নতুন এ উপত্যকাতে-বাল্যবন্ধুর বন্ধনে বধূরূপে তোমাকে।

যেভাবেই হোক তবুও তো দেখা হলো-
আহ! কত কাছে এসে পড়েছ, গোলকধাঁধা লাগছে আমার,
নিজ ঘরে না হোক-পথে পরের সাথে দেখা পেলাম তোমার;
একেবারে বাল্যবন্ধুও তুমি-এসেছ মধুচন্দ্রিমা যাপনে,
কী অদ্ভুত দৃশ্য! এমন ভাবিনি একটু আগে ঘুণাক্ষরে।

প্রবোধ দিলাম নিজেকে,
বড় ভালোবাসা কেবল আত্মার্জনেই সার্থক হয় না,
অন্যের জন্য বিসর্জনেও সার্থক হয়;
সুখে থেকো-দোয়া রইল, হে প্রিয়;
নিজের ভবিতব্য জানিনে
ভাবি না-কোথায় হবে আমার শেষ ঠিকানা।

নদী পাহাড় সাগর বন, বন্য প্রাণী, পাখপাখালি, রং-বেরঙের মাছ;
এসব নিয়েই ব্যস্ততা আমার;
ঝোপঝাড়ে বন-বাদাড়ে পুকুরে ফুল-ফল
মাছ ফড়িং পাখির খোঁজে ছুটতে তুমি সকাল-বিকাল।

কোনো একদিন-
লম্বা ছিপছিপে রূপা নামের মেয়ে তুমি;
ডাগর কালো হরিণ চোখ
ঝাঁকড়া গাছের মতো ঘনকালো কোঁকড়া চুল,
চটুল চপল চঞ্চল চলন-ফিরন;
দেখা হলো-কথা হলো বনের মাঝে, অতঃপর আরো;
ভাব ভাষা মনমানসিকতা মিলে গেল;
বিনিময় করলাম একে অপরের ভালোবাসা,
নাম দিলাম তোমার বনরূপা।

পরিশেষে মোড়ের ’পরে দেখা হলো!
কি ভূত দেখছ?
ভূত নয়-আমিই সুজিত শর্মা;
আর ঠিক আমার পাশেই উঠেছ,
সাথে তোমার বর রোহিত শর্মা।

চিত্র আঁকা সম্পূর্ণ হয়েছে
ভরাট লাগছে তোমায়-দেহমনে;
যে তোমাকে দেখছি এখন-সে তুমি নও;
ছিল তখন শূন্যতা, অপূর্ণতা, আকাক্সক্ষা,
ছিল, না পাওয়ার তীব্র ব্যাকুলতা।
আকুল করা-সে তুমি নও;
রূপা, নও তুমি আমার বনরূপা
বন্ধুর ঘরে ঘরনি, তুমি বিবাহিতা।

সুজিত, তোমার ঠিকানা ছিল না জানা
হঠাৎ বাবার বদলি হলে চলে গেলাম পাবনা;
তোমায় খুঁজতে দুর্ঘটনায় পড়ে হলাম পাগলপারা
আঘাতে স্মৃতিবিভ্রাট ঘটে তবু তোমার নাম ভুলি না;
আপনপর ছেলেদের সুজিত বলে ভাবি,
তুমি কি আমার সুজিত, সবাইকে বলি?

বাবা, কৌশলে রোহিতকে সুজিত বলে
দিলেন আমার সাথে বিয়ে;
রোহিত ও ওর বাবার আপত্তি ছিল না মোটে।

ডাক্তার বলেছেন, ভালো হয়ে যাব
দূর হলে মনে থাকা জমাট শোক-তাপ;
এখানে বেড়াতে আসি,
দার্জিলিংয়ে কী করছ তুমি?

মাপছি-পাহাড়গুলো জমিন হতে কত উঁচু,
এগুলো কি বনরূপার চেয়েও অপরূপ?
-নিউইয়র্ক।