সুদের হার বৃদ্ধি করল যুক্তরাষ্ট্র ও চীনের কেন্দ্রীয় ব্যাংক

ঠিকানা ডেস্ক : চলতি বছর প্রথমবারের মতো সুদের হার বাড়িয়েছে যুক্তরাষ্ট্রের কেন্দ্রীয় ব্যাংক। অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধির শক্তিশালী আউটলুকের সুবাদে সুদের হার ১ দশমিক ৫ শতাংশ থেকে ১ দশমিক ৭৫ শতাংশে উন্নীত করেছে ফেডারেল রিজার্ভ (ফেড), যা এক দশকের মধ্যে সর্বোচ্চ। সব ধরনের ঋণের ক্ষেত্রে এ সুদ কার্যকর হবে বলে জানা গেছে। যুক্তরাষ্ট্রের এ পদক্ষেপের পর নগদ অর্থের বহির্প্রবাহ রোধে স্বল্পমেয়াদি বাণিজ্যিক ঋণে সুদের হার বৃদ্ধির ঘোষণা দিয়েছে পিপল’স ব্যাংক অব চায়না (পিবিওসি)।

নবনিযুক্ত ফেড চেয়ারম্যান জেরোম পাওয়েলের নেতৃত্বে এটিই ছিল ফেডের প্রথম বৈঠক। বর্ধিত সুদের হার আবাসন থেকে শুরু করে গাড়ি ও শিক্ষার মতো সব ধরনের ঋণের ক্ষেত্রেই প্রযোজ্য হবে। ফেড চেয়ারম্যান হিসেবে প্রথম সংবাদ সম্মেলনে সাম্প্রতিক মাসগুলোয় যেসব কারণে অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধির আউটলুক বেড়েছে, তা উল্লেখ করেন পাওয়েল। তিনি জানান, ‘আরো উদ্দীপক’ আর্থিক নীতি, ডিসেম্বরে কংগ্রেসে পাস হওয়া বিপুল কর কর্তন বিলকে কেন্দ্র করে অর্থনীতি পুনরুজ্জীবিত হয়ে উঠেছে।

এছাড়া কর্মসংস্থানে অব্যাহত গতি আয়ের পাশাপাশি সাধারণ মানুষের আস্থাও বাড়িয়ে দিয়েছে বলে জানান ফেডপ্রধান পাওয়েল। আর এসব কারণেই ফেড কর্মকর্তারা আগামী বছর সুদ বৃদ্ধির ক্ষেত্রে কিছুটা আগ্রাসী পথ অনুসরণ করবে। সাংবাদিকদের উদ্দেশে পাওয়েল বলেন, সুদের হার বৃদ্ধি সত্তে¦ও বিশ্বের বৃহত্তম অর্থনীতির দেশটি ‘আর্থিক সংকটের পূর্বমুহূর্তের চেয়েও অনেক ভালো অবস্থায় রয়েছে। ১০ বছর আগের তুলনায় মার্কিন অর্থনীতির স্বাস্থ্য এখন অনেক ভালো।’