সৌদিতে বিদেশি পর্যটকদের জন্য দরজা খুলছে

ঠিকানা অনলাইন : তেলভিত্তিক অর্থনীতির ওপর নির্ভরতা কমাতে বিদেশি পর্যটকদের প্রথমবারের মতো সৌদি আরবের দরজা উন্মুক্ত করা হচ্ছে। চলমান বিশ্বের সঙ্গে তাল মিলিয়ে অর্থনীতিতে গতিশীলতা আনতে এই উদ্যোগ নিচ্ছে তেলনির্ভর মধ্যপ্রাচ্যের দেশ সৌদি আরব।

বিবিসি জানায়, পর্যটকদের জন্য শুক্রবার ৪৯টি দেশের ভিসা ব্যবস্থা চালু করতে যাচ্ছে সৌদি আরব। নারী পর্যটকদের সুবিধার্থে পোশাকের কড়াকড়িতেও শিথিলতা আনা হচ্ছে।

পর্যটনমন্ত্রী আহমদ আল-খাতিব এমন সিদ্ধান্তকে ‘ঐতিহাসিক মুহূর্ত’ বলে মন্তব্য করেছেন।

এত দিন হজ, ব্যবসা এবং প্রবাসী কর্মজীবীদের জন্য সৌদি আরবের ভিসা সীমাবদ্ধ ছিল। এখন থেকে সেখানে যুক্ত হচ্ছে পর্যটন ভিসাও।

সৌদি কর্তৃপক্ষ আশা করছে, এর মধ্য দিয়ে পর্যটনখাতে দেশি বিদেশি বিপুল বিনিয়োগ ঘটবে। ২০৩০ সালের মধ্যে পর্যটন খাত দেশীয় উৎপাদনকে ৩ শতাংশ থেকে ১০ শতাংশে উন্নীত হবে।

আল খাতিব বলেন, “দর্শনার্থীরা অবাক হয়ে যাবেন, আমরাও আমাদের ভান্ডারগুলো তাদের সঙ্গে ভাগ করে নিতে চাই, ইউনেসকো ঘোষিত পাঁচটি বিশ্ব ঐতিহ্য, প্রাণবন্ত এক স্থানীয় সংস্কৃতি, শ্বাসরুদ্ধকর প্রকৃতি।”

তবে অমুসলিমেরা এখনো পবিত্র নগরী মক্কা-মদিনায় ভ্রমণ করতে পারবেন না। এ ছাড়া মদ্যপানের নিষেধাজ্ঞাও মেনে চলতে হবে পর্যটকদের।

তবে নারী পর্যটকদের স্থানীয়দের মতো বোরকা বা আবায়া পরতে হবে না কিন্তু পোশাকে শালীনতা বজায় রাখতে হবে বলে সৌদি কর্তৃপক্ষ জানায়।