২০১৯ সালের সেরা সুন্দরী নারী গাল গ্যাদোত

বিশ্বচরাচর ডেস্ক : লাইফস্টাইল ওয়েবসাইট আইডিয়ালুম ডট কম ২০১৯ সালের জন্য বিশের সবচেয়ে সুন্দরী ২৫ নারীর তালিকা প্রকাশ করেছে। ২৫ নারীর এই তালিকার শীর্ষে অবস্থান করছেন ইসরাইলি অভিনেত্রী গাল গ্যাদোত। ওয়েবসাইটটি জনপ্রিয়তা, মেধা, চাহিদা, আকর্ষণীয়তা, আবেদনি ক্ষমতা এবং সাফল্যের উপর ভিত্তি করে এই তালিকা দেয়। এখানে শুধু শারীরিক সৌন্দর্য্য বিবেচনায় আনা হয়নি। নিচে তালিকার শীর্ষ ৫ নারীর বর্ণনা দেওয়া হলো।

৫. নাটালি পোর্টম্যান : ৫ নম্বরে রয়েছেন এই ৩৭ বছরবয়সী অভিনেত্রী, চলচিত্র প্রয়োজক ও পরিচালক। এই ‘ভি ফর ভেনডেট্টা’ তারকা একবার করে জয় করেছেন অস্কার, ব্রিটিশ অ্যাকাডেমি আর স্ক্রিন অ্যাকটরস গিল্ড পুরস্কার। আর দুবার জিতেছেন গোল্ডেন গ্লোব। ২ সন্তানের এই জননী বর্তমানে লস অ্যাঞ্জেলস এ বসবাস করছেন।

৪. স্কারলেট জোহানসন : এই অ্যাভেঞ্জার তারকা তালিকার ২ নম্বরে রয়েছে। ড্যানিশ বংশোদ্ভূত স্কারলেটের বর্তমান বয়স ৩৪। ১৯৯৪ সালে নর্থ চলচিত্রের মাধ্যমে তার হলিউড অভিষেক হয়। বর্তমানে ডেমোক্র্যাট রাজনীতির সঙ্গে জড়িত স্কারলেট বর্তমানে নিউইয়র্কে বসবাস করছেন।

৩. মিলা কুনিস : তালিকার ৩ নম্বরে রয়েছেন ৩৫ বছর বয়সী সুন্দরী মিলা কুনিস। তার ক্যারিয়ারও শুরু হয় ১৯৯৪ সালে। সোভিয়েত ইউক্রেনে জন্ম নেওয়া এই তারকা ২ সন্তানের জননী। ২০০৮ সালে ম্যাক্স পাইন চলচিত্রে অভিনয় করে জনপ্রিয়তা পান কুনিস।

২. মার্গারেট রুবি : অস্ট্রেলিয়ন সুন্দরী মার্গারেট রুবি তালিকার ২ নম্বরে রয়েছেন। তিনি একই সঙ্গে অভিনয় এবং চলচিত্র পরিচালনা করছেন। ২০০৮ সালে ক্যারিয়ার শুরু হয় এই ২৮ বছর বয়সীর। মার্টিন স্করসিসের জীবনী নিয়ে তৈরি চলচিত্র উলফ অব ওয়াল স্ট্রিটে অভিনয় করে জনপ্রিয়তা পান তিনি।

১. গাল গ্যাদোত : তালিকার শীর্ষে রয়েছেন ইসরায়েলি সুন্দরী গাল গ্যাদোত। ১৯৮৫ সালে জন্মগ্রহণ করেন ৩৩ বছর বয়সী এই মডেল ও অভিনেত্রী। ২০০৪ সালে তিনি মিস ইসরাইল নির্বাচিত হন। বর্তমানে হলিউডে চুটিয়ে অভিনয় করছেন এই ব্যাটম্যান ভার্সেস সুপারম্যান তারকা। এ ছাড়াও ফাস্ট অ্যান্ড ফিউরিয়াসের মতো জনপ্রিয় ফ্র্যাঞ্চাইজিতেও অভিনয় করেন তিনি।

শীর্ষ দশে আরো রয়েছেন; জেনিফার লরেন্স, এমিলি তাজোওস্কি, বেøক লিভেলি, এমা ওয়াটসন এবং আলেক্সান্দ্রা দাদারিও। ২৩ নম্বরে আছেন ব্রিটিশ রাজবধূ মেগান মর্কেল।