৫০ কোটি মানুষ না খেয়ে থাকে এশিয়ায়

বিশ্বচরাচর ডেস্ক : এশীয় প্রশান্ত মহাসাগরীয় অঞ্চলে ৫০ কোটি মানুষ না খেয়ে থাকে। দ্রুত অর্থনৈতিক উন্নয়ন সত্ত্বেও এসব মানুষের ভাগ্যোন্নয়ন হচ্ছে না। অনাহার ও অপুষ্টির শিকার তারা। ২০৩০ সালের মধ্যে যাবতীয় পুষ্টি সংকট দূর এবং ক্ষুধা থেকে তাদের মুক্তি দেওয়া না গেলে এশিয়ার দেশগুলো মানবসম্পদের ক্ষেত্রে মারাত্মক ক্ষতির সম্মুখীন হতে পারে। গত ২ নভেম্বর প্রকাশিত জাতিসংঘের এক প্রতিবেদনে এ আশঙ্কা ব্যক্ত করা হয়েছে। জাতিসংঘের চারটি সংস্থা এ ব্যাপারে সতর্কও করে দিয়েছে। খবর এএফপির। খাদ্য ও কৃষি সংস্থার প্রতিবেদনে বলা হয়েছে- এশিয়ার, বিশেষ করে পূর্ব ও দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ায় অপুষ্টিজনিত মানুষের সংখ্যা বাড়ছে। অঞ্চলে এ ক্ষেত্রে কয়েক বছর ধরে কোনো উন্নতি নেই। এ অঞ্চলের অপেক্ষাকৃত ভালো শহর ব্যাংকক ও কুয়ালালামপুরে এমন অনেক দরিদ্র পরিবার আছে, যারা তাদের শিশুকে ভালো খাবার দিতে পারে না। ভালো খাদ্যের অভাবে প্রায়ই বিভিন্ন স্বাস্থ্য জটিলতায় পড়ে এসব শিশু। বলা হয়, ব্যাংককে ২০১৭ সালে এক-তৃতীয়াংশের বেশি শিশু পর্যাপ্ত খাদ্য পায়নি। অন্যদিকে পাকিস্তানে মাত্র ৪ শতাংশ শিশু গ্রহণযোগ্য মাত্রার সর্বনিম্ন পর্যায়ের খাবার পেয়েছে। দীর্ঘ মেয়াদে, অপুষ্টির হার ২০০৫ সালের ১৮ শতাংশ থেকে ২০১৭ সালে ১১ শতাংশে হ্রাস পেলেও খাদ্য নিরাপত্তাহীনতা এবং অপর্যাপ্ত স্যানিটেশনের কারণে শিশুরা বিভিন্নভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছে ।